তামিমা আমার স্ত্রী, হাসিমুখেই ঘরে নেব: রাকিব!

ডিভোর্স না দিয়ে অন্যের স্ত্রীকে বিয়ে করার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় ক্রিকেটার নাসির হোসেন, তার স্ত্রী তামিমা সুলতানা তাম্মি এবং তাম্মির মা সুমি আক্তারের বিরুদ্ধে সমন জারি করেছেন আদালত।

আইনগতভাবে তামিমা এখনও রাকিব হাসানের স্ত্রী। কিন্তু কী ভাবছেন রাকিব? বৃহস্পতিবার (৩০ সেপ্টেম্বর) দুপুরে আদালত থেকে রাইজিংবিডির সঙ্গে কথা বলেন রাকিব। তার কাছে পরবর্তী করণীয় কী জানতে চাইলে সরাসরিই বলেন, ‘সে এখনও আমার স্ত্রী, এটা আইনই বলে দিয়েছে।’

তামিমাকে এখনও নিজের স্ত্রী হিসেবে চান। যদি ফিরে আসে তাকে হাসিমুখেই ঘরে তুলবেন রাকিব, ‘তামিমা আমার স্ত্রী, তাকে হাসিমুখেই ঘরে নেব, বরিশাল নিয়ে যাব। আমার মেয়েকে দেখাশোনা করবে।’

তিনি যখন কথা বলছিলেন তখনও অবস্থান করছিলেন আদালতে। নাসির-তামিমাকে ৩১ অক্টোবর আদালতে হাজির হতে বলা হয়েছে। যদি না আসেন তাদের গ্রেপ্তার করা হবে। রাকিব এখন তাকিয়ে আছেন আদালতের পরবর্তীও নির্দেশের দিকে।

এর আগে নাসির ও তামিমার বিয়ে অবৈধ বলে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয় পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। পরে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির আবেদন করেন এ সংক্রান্ত মামলার বাদী ও তামিমার সাবেক স্বামী রাকিব।

রাকিবের হয়ে এ আবেদন করেন আইনজীবী ইশরাত জাহান। ওই সময় নথি পর্যালোচনা করে আদেশ দেবেন বলে জানান আদালত।

এরও আগে ওই আদালতে মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন পিবিআইয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা মিজানুর রহমান। এতে ক্রিকেটার নাসির, তামিমা ও তামিমার মা সুমিকে দোষী উল্লেখ করা হয়।